জ্বর- শ্বাসকষ্টে শিক্ষকের মৃত্যু, লাশ নিয়ে ফেরি পার হতে বাধা !

ফতেয়াবাদ সিটি কর্পোরেশন কলেজের শিক্ষক আবদুল্লাহ আল মামুন গতকাল চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ইন্তেকাল করেন। গোসল ও কাফনের পর্ব শেষে আল মানাহিলের দল পেকুয়ার মগনামা ফেরি ঘাটে যায়। উদ্দেশ্য কুতুবদিয়ার দক্ষিন মলম চর

জ্বর- শ্বাসকষ্টে শিক্ষকের মৃত্যু, লাশ নিয়ে ফেরি পার হতে বাধা !
ছবি : banglarkagoj.com জ্বর- শ্বাসকষ্টে শিক্ষকের মৃত্যু, লাশ নিয়ে ফেরি পার হতে বাধা !

ফতেয়াবাদ সিটি কর্পোরেশন কলেজের শিক্ষক আবদুল্লাহ আল মামুন গতকাল চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ইন্তেকাল করেন।

গোসল ও কাফনের পর্ব শেষে আল মানাহিলের দল পেকুয়ার মগনামা ফেরি ঘাটে যায়। উদ্দেশ্য কুতুবদিয়ার দক্ষিন মলম চর গ্রাম।

কিন্তু  ওখানে  কোন স্টিমার বা লঞ্চ  নিতে রাজী হয়নি। বুঝানোর চেষ্টা করা হয় অনেক।  সবার মুখে এক কথা! এই  লাশ আমরা নিতে পারবো না ! এলাকাবাসীর মানা।

শুরু হল অপেক্ষার প্রহর।
জানা যায়  স্থানীয় কিছু লোকজন প্রশাসনের কাছে দাবি জানিয়েছে যাতে লাশের দাফন কুতুবদিয়াতে না হয়।


অবশেষে অনেক তোরজোড় এর পর কিছু শর্ত সাপেক্ষে ইউএনও সাহেব লঞ্চে যাওয়ার অনুমতি দেন।

লাশ দাফন শেষে স্বজনদের চোখেমুখে ছিল তৃপ্তি, নেই কোন কান্নার পানি।

তবে যে শুধু খারাপ অভিজ্ঞতা ছিল তা না, মুদ্রার অপর পিঠের মত কিছু স্থানীয় মানুষ কবর দেওয়াতে হাত লাগিয়েছিল ।
আর কিছু মানুষ ভুল বুঝে ক্ষমা চেয়েছিল।